সন্দ্বীপ সমিতি ইউকের একাত্মতা ঘোষণার মধ্য দিয়ে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জ্ঞাপন।

‘‘ঢাকার জাতীয় প্রেস ক্লাবে সন্দ্বীপীদের সংবাদ সম্মেলন’’
আজ রোববার, ১০/১১/২০১৯ ইং সকাল ১০ টায় সন্দ্বীপের নদী ভাঙ্গন কবলিত সাবেক ন্যামস্তিতে জেগে উঠা ভাসান চরকে সরকার সন্দ্বীপের সীমানা ও থানা ঘোষণা না করে ২৫/৩০ কলোমিটার দূরের হাতিয়া-নোয়াখালীর থানা ঘোষণা করায় ঢাকার জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

এই ঘোষণার ফলে বাস্তু ভিটাহারা সন্দ্বীপীদের ভূমির অধিকারকে হরণ করা হয়েছে ও পার্শ্ববর্তী নোয়াখালী জেলার প্রশাসনিক জটিলতায় পড়ে কতিপয় স্বার্থান্নেষী ভূমি দস্যুদের আগ্রাসনের শিকার হচ্ছে।

এহেন বিরূপ পরিস্থিতিতে, এককালের প্রখ্যাত ছাত্র নেতা ও ডাকসুর দু দু বারের সম্পাদক পদে নির্বাচিত জনাব নুরুল আক্তারের তত্ত্বাবধানে ঢাকায় সন্দ্বীপীদের ১০ টি সংগঠন একত্রে জাতীয় প্রেস ক্লাবে অদ্য সংবাদ সম্মেলন করে।

উক্ত সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ডঃ সালেহা কাদের, প্রখ্যাত সাংবাদিক শাহাদাত আশরাফসহ ডেভেলপম্যান্ট ফোরাম ঢাকা, উত্তরা সন্দ্বীপ সমাজ ঢাকা, বৃহত্তর মিরপুর সন্দ্বীপ সমাজ ঢাকা, সন্দ্বীপ হরিশপুর ইউনিয়ন নদী সিকস্তি পুনর্বাসন কমিটি ঢাকা, সন্দ্বীপ ষ্টুডেন্টস ফোরাম ঢাকা, সোনালী মিডিয়া ফোরাম ঢাকা, সন্দ্বীপ ফ্রেন্ডস সার্কেল এসোসিয়েশন, সন্দ্বীপ ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ, মুছাপুর বদিউজ্জামান হাই স্কুল প্রাক্তন ছাত্র পরিষদ ও সাউথ সন্দ্বীপ হাই স্কুল প্রাক্তন শিক্ষার্থী সমিতি ঢাকার নেতৃবৃন্দ।

তাছাড়া উক্ত সংবাদ সম্মেলনের সাথে ছিলেন প্রাক্তন দায়রা জজ আবু সুফিয়ান, সাবেক স্বাস্থ্য সচিব জাফর উল্লাহ খান, সাবেক বিদ্যুৎ সচিব ড. ফওজুল কবির খান, সাবেক আইন সচিব কাজী হাবিবুল আউয়াল, লেফটেন্যান্ট জেনারেল চৌধুরী হাসান সোহরাওয়ার্দ্দিসহ সন্দ্বীপের বিশিষ্ট জনেরা।

সন্দ্বীপ সমিতি ইউকে ইতোমধ্যে উক্ত সংগঠনগুলোর যে কোন কর্মসূচির প্রতি একাত্মতা ঘোষণা করেছে।তাছাড়াও সন্দ্বীপ ও চট্টগ্রামসহ দেশে বিদেশের যে কোন স্থানে এই প্রতিবাদী উদ্যোগ ও কর্মসূচীকে স্বাগত জানাচ্ছে।

সন্দ্বীপীদের এই মহতী ন্যায্য দাবি ও অধিকার বিষয়ে সোচ্চার হবার জন্যে সংশ্লিষ্ঠ সকলকে সন্দ্বীপ সমিতি ইউকে’র পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাচ্ছে।

সন্দ্বীপ সমিতি ইউকে বাংলাদেশ সরকারের কাছে জোর দাবি জানাচ্ছে, হাই কোর্টের রায় মোতাবেক ৬০ (সর্বমোট ৭৫) মৌজার সন্দ্বীপের সীমানা নির্ধারণ করে এবং ভাসান চর ও স্বর্ণদ্বীপসহ জেগে উঠা সব চরাঞ্চল সন্দ্বীপ উপজেলার অন্তর্ভুক্ত করার মধ্য দিয়ে সন্দ্বীপবাসী ও বিদেশে অবস্থানরত রেমিটেন্স যোদ্ধাদের ন্যায্য দাবি যেন অচিরেই মেনে নেয়া হয়।
ধন্যবাদসহ,
সন্দ্বীপ সমিতি ইউকের পক্ষে,
এডভোকেট শিব্বীর আহমেদ তালুকদার,
সভাপতি

মোঃ মিজানুর রহমান লিংকন,
সাধারণ সম্পাদক।
তাং: ১০/১১/২০১৯ইং।