কাপুরুষের মতো হাজার বছর বেঁচে লাভ নেই, সিংহের মতো একদিন বাঁচেন, নেতাকর্মীদের গয়েশ্বর

রোববার রাজশাহীর বিভাগীয় সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য বাবু গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, আপনারা বার বার হাত তুলে বলছেন- নেত্রীর মুক্তি চাই, নেত্রীর মুক্তির জন্য আন্দোলন করবেন? কিছু দিনের মধ্যেই আন্দোলন দৃশ্যমান হবে। যখন আন্দোলনের কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে, আমরা আশা করবো আপনারা সংগ্রামে নামবেন।

পুলিশকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, পুলিশ বাহিনী যে যেখানে আছেন দেশের স্বার্থে, আপনিও জনগণের একজন। পেশাগত ভাবে যাই থাকেন এই জনগণের আন্দোলনে যোগ দিন। গণতান্ত্রিক আন্দোলনে জনগণের মুখোমুখি হবেন না। কারণ দেশের ক্ষতি হলে আপনারও ক্ষতি, আমারও ক্ষতি, সাধারণ মানুষেরও ক্ষতি। দেশের মালিক জনগণ, তাই জনগণের কথা আপনাদের শুনতে হবে, তাদেরকে সম্মান করতে হবে।

তিনি বলেন, যেই ব্যক্তিকে বাঁচানোর জন্য, ক্ষমতা রাখার জন্য চেষ্টা করছেন, আমার তো মনে হয় চারিদিকে যে আওয়াজ তাতে তিনি বেশিদিন ক্ষমতায় থাকতে পারবেন না।
আরো পরুন : প্রাথমিকের সাড়ে ১০ কোটি বই ছাপা নিয়ে জটিলতা

ক্যাসিনো অভিযান পরিচালনা নিয়ে গয়েশ্বর বলেন, মাত্র ৩টা রাস্তার টোকাই তাদের কাছে যদি এত টাকা থাকে। তাহলে যারা পতাকাবাহী তাদের কাছে কত টাকা আছে? ওই যে পার্লামেন্টে যায় আসে তাদের কাছে আছে কত টাকা?

লক্ষ লক্ষ টাকা বিদেশে পাচার করেছে। গ্রাহক ব্যাংকে গেলে টাকা দিতে পারে না ব্যাংকগুলো। কোনও বিনিয়োগ নাই। ওই যে দরবেশ আছে মন্ত্রিসভায় শেয়ারমার্কেটের খবর কি? হলমার্কের হাজার কোটি টাকার খবর কি? বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ থেকে যে চুরি হয়ে গেল সেই টাকা উদ্ধার হচ্ছে না কেন?
খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রসঙ্গে গয়েশ্বর বলেন, আজ সতের কোটি মানুষ বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি চায়। চায় না শুধু একজন তার নাম শেখ হাসিনা। যারা পোশাক পরে (পুলিশ) আজকে সমাবেশে আসতে বাধা দিয়েছে তাদের জন্য শেখ হাসিনা আজ প্রধানমন্ত্রী।

খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে রাজশাহী নগরীর মাদ্রাসা মাঠ সংলগ্ন ঈদগা রোডে এ সমাবেশে অনুষ্ঠিত হয়।