সরকার চামড়া শিল্পকে পরিকল্পিতভাবে ধ্বংস করছে, বললেন জোনায়েদ সাকি

গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি বলেছেন, সরকার চামড়া শিল্পকে পরিকল্পিতভাবে ধ্বংস করছে। এই শিল্পকে দাঁড় করানোর জন্য যেসব সহযোগিতা থাকা দরকার সরকার তা করছে না। যার ফলে আন্তর্জাতিক বাজারে যে ধরণের মানসম্পন্ন চামড়ার চাহিদা রয়েছে, তা আর বাংলাদেশে উৎপাদন হচ্ছে না। রোববার একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক বলেন, দেশীয় চামড়ার বাজার পর্যায়ক্রমে ধ্বংস হওয়ায় ক্রেতারা এখন আর চামড়া ক্রয় করছেন না। এছাড়াও এতিম খানা ও যেসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের লোকজন কাঁচা চামড়া সংগ্রহ করেছেন তারা তা এখন তা বিক্রি করতে পারছেন না।

তিনি আরও বলেন, সরকার ও ঢাকা সিটি করপোরেশন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত মানুষের জীবন নিয়ে রাজনীতি করছে। ডেঙ্গু এখন দেশে মহামারি আকারে রূপ নিয়েছে। ডেঙ্গু প্রতিরোধে জনগণকে সম্পৃক্ত করতে হবে। সরকারের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে এ পর্যন্ত ডেঙ্গুতে ৫০ হাজার মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। তবে বেসরকারি হিসাব অনুযায়ী লাখ লাখ মানুষ আক্রান্ত হয়েছে বলে জানা গেছে। আমি মনে করি অগ্রাধিকার ভিত্তিতে সরকারের ডেঙ্গু প্রতিরোধ করতে হবে। আমরা ডেঙ্গু প্রতিরোধে সর্বাত্মক চেষ্টা করছি। প্রত্যেকে ডেঙ্গুর মশার উৎপত্তি স্থল ধ্বংস করতে উদ্যোগী হলে তা প্রতিরোধ করা সম্ভব। কিন্তু এখন ডেঙ্গু প্রতিরোধে সামাজিক চেহারা নেই, রাজনৈতিক রূপ নিচ্ছে। এই কারণে ডেঙ্গু প্রতিরোধ সরকারের পক্ষে আর সম্ভব হচ্ছে না।