বহিরাগতদের আধিপত্য, দায়িত্বহীন স্টেশন মাস্টারের কর্মকাণ্ডে দুর্ভোগে ট্রেন যাত্রীরা

মৌলভীবাজারে মাস্টার বিহীন স্টেশন চালায় বহিরাগতরা, দূর্ভোগে ভানুগাছ স্টেশনের ট্রেন যাত্রীরা।

সিলেট রুটের ভানুগাছ স্টেশন মাস্টার কাগজে কলমে হাজির থাকলেও স্টেশন অফিস বহিরাগতদের হাতে রেখে বাড়ি চলে যান। আর সে জন্য দুর্ভোগে পড়তে হয় ভানুগাছ রেলওয়ে স্টেশন দিয়ে যাতায়াত করা ট্রেন যাত্রীদের।

স্টেশনে মাস্টার আছেন বড় মাস্টার সেলিম আহমদ ও একজন ছোট মাস্টার রয়েছেন। তারা দুই জন দুই সিফটে অফিস বা স্টেশন পরিচালনা করার কথা। ছোট মাস্টার নিয়মিত ভাবে দায়িত্ব পালন করলেও বড় মাস্টার ঠিক তার উল্টো কাজ করছেন। এছাড়াও বড় মাস্টার হওয়ার সুবাদে সেলিম আহমদ ভানুগাছ স্টেশনে বহিরাগতদের দিয়ে গড়ে তুলেছেন টিকেট বিক্রির কালোবাজারির সিন্ডিকেট।

খোঁজ নিয়ে জানাযায়, কালোবাজারি মাধ্যমে ট্রেনের টিকেটের বিক্রি করে অতিরিক্ত টাকা আদায় করছেন যাত্রীদের কাজ থেকে।

আলাপকালে এক ট্রেন যাত্রী বলেন, রেলস্টেশনে এসে টিকেট কিনতে গিয়ে প্রতিটি টিকেটের গায়ে লেখা ভাড়ার চেয়ে ১০০/১৫০ টাকা অতিরিক্ত দিয়ে কিনতে হয়। এ বিষয়ে স্টেশন মাস্টারের সঙ্গে কথা বলতে চাইলে জানা যায় ৩/৪দিন আগে স্টেশনের বড় মাস্টার সেলিম সাহেব বাড়িতে গেছেন। এ বিষয়ে ছোট মাস্টারের সঙ্গে কথা হলে তিনি বলেন, রাতে ডিউটি করে ঘুমাচ্ছি। তাছাড়া এ বিষয়ে আমার কিছু করার নেই।

এ বিষয়ে ভানুগাছ স্টেশনের বড় মাস্টার সেলিম আহমেদ বলেন, বহিরাগত বলতে এখানে কেউ নাই। আমি আসার র্পূবে থেকেই এই স্টেশন এভাবে চলে আসছে। সম্পাদনা: আহসান ও রাশিদ
সূত্র:আমাদের সময়.কম