রাস্তাঘাটের হালচাল:কাজ শেষ না হতেই ধসে যাচ্ছে এলেঙ্গা-ভূঞাপুর সড়ক!

ঢাকা-তারাকান্দী সড়কের এলেঙ্গা থেকে ভূঞাপুর পর্যন্ত ১৭ কিলোমিটার সড়ক প্রশস্তকরণের কাজ শেষ না হতেই ধসে পড়ছে। কারণ হিসেবে বৃষ্টিকে দায়ি করেছেন কর্তৃপক্ষ।

সরজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, সড়কটির শতাধিকস্থানে বৃষ্টির পানিতে ডুবে গিয়ে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। আবার কোনো কোনো জায়গায় ধসে গেছে। স্থানীয় লোকজন দুর্ঘটনা এড়াতে ওই ধসে যাওয়া অংশে সতর্ক সংকেতের জন্য গাছের ডাল ফেলে রেখেছেন।

জানা গেছে, এলেঙ্গা-ভূঞাপুর-তারাকান্দি আঞ্চলিক মহাসড়কের এলেঙ্গা হতে ভূঞাপুর পর্যন্ত প্রায় ১৭ কিলোমিটার সড়ক ১৮ ফুট থেকে ২৪ ফুট প্রশস্তকরণ ও দশটি নতুন ব্রিজের কাজ শুরু করে সড়ক ও জনপদ বিভাগ (সওজ)। আর এই সড়ক ও ব্রিজের কাজ পায় কয়েকটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান।

অন্যদিকে সড়ক সম্প্রসারণের কাজ প্রায় ৭০ ভাগ শেষ হয়ে গেছে। সড়কের দু’পাশে ইটের খোয়া ও বালু দিয়ে কাজ করার পর গত কয়েক সপ্তাহ আগে পাথর ফেলা হয়।
এরপর পাথরের উপর ঢালাই করা শেষে সড়কের প্রশস্তকরণের কাজ শেষ হওয়ার কথা থাকলেও সামান্য বৃষ্টিতেই সড়ক দেবে ও ধসে গেছে। সড়কের সিংগুরিয়া বাজার সংলগ্ন, মাদারি পাড়া, আদাবাড়ি, নগরবাড়ি, তাতিঁহারা, সয়া, পালিমা, কুচুটি বাজার সংলগ্ন, ভাঙ্গাবাড়ি এলাকার সড়ক দেবে ও ধসে গেছে। এলাকাবাসীর অভিযোগ কাজের মান নিম্ন হওয়ায় এ সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে।

এ বিষয়ে টাঙ্গাইল সড়ক ও জনপদ (সওজ) বিভাগের সহকারি প্রকৌশলী সোহেল মাহমুদ বলেন, সড়কের কাজ এখনও শেষ হয়নি। বৃষ্টির পানি একদিকে প্রভাবিত হওয়ায় সড়কের মাটি সরে গিয়েছে। ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ধসে যাওয়া অংশ পুনরায় ভরাট করে কাজ করবে।